পদ্মা সেতু পাড়ি দিয়ে ঢাকা থেকে তিন ঘন্টায় বরিশালে পৌঁছে যাত্রীরা দারুন খুশি

পদ্মা সেতু পাড়ি দিয়ে ঢাকা থেকে তিন ঘন্টায় বরিশালে পৌঁছে যাত্রীরা দারুন খুশি

বিটিবি নিউজ ডেস্ক: পদ্মা সেতু দিয়ে ঢাকা থেকে বরিশালে তিন ঘন্টায় পৌঁছে যাত্রীরা দারুন খুশি। ঢাকা থেকে পদ্মা সেতু দিয়ে প্রথম যাত্রায় অল্প সময়ে বরিশাল নগরের কেন্দ্রীয় বাস টারমিনাল নতুল্লাবাদে পা রাখতে পারায় তারা আনন্দিত।
পরিবহণ সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, স্বপ্নের পদ্মা সেতুর প্রথম দিনে একটু যানবাহনের চাপ থাকার কারনে টোলঘর পার হতে একটু বিলম্ব হওয়া সত্বেও যাত্রীদের মাঝে ছিল অন্যরকম আনন্দ উল্লাস। তারা প্রমত্ত পদ্মায় কোন নৌ-যানে ভেসে নয় এবারই প্রথম ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে পদ্মা সেতু দিয়ে নিজ গন্তব্যে আসতে পারায় জীবনে এক নতুন আনন্দ খুঁজে পেয়েছেন বলে বরিশালে আসা যাত্রীরা তাদের অভিমত প্রকাশ করলেন।
আজ রোববার বরিশালের কেন্দ্রীয় নতুল্লাবাদ বাস টারমিনালে সর্বপ্রথম বেসরকারি শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত সাকুরা পরিবহন ঢাকার সায়েদাবাদ বাস টারমিনাল থেকে ভোর সাড়ে ৫টায় ৪০ জন যাত্রী নিয়ে বরিশালে যাত্রা করে। তবে সাকুরা পরিবহনের বাসটি টোল ঘরে জ্যামে আটকা পড়লেও তারা বরিশালে সোয়া ১০টায় যাত্রী নিয়ে পৌঁছেন। তারা পুনরায় বেলা ১১টায় যাত্রী নিয়ে ঢাকার উদ্দ্যেশে যাত্রা করেন বলে বরিশাল সাকুরা কাউন্টার ইনচার্জ জানান।
সাকুরা পরিবহনের অপর গাড়ি সকাল সাড়ে ৬ টায় ঢাকার গাবতলী থেকে যাত্রী নিয়ে তিন ঘন্টার মধ্যে বরিশালের নতুল্লাবাদ পৌঁছে যান।
এদিকে পদ্মা সেতু চালু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকা গ্রীন লাইন এসি পরিবহন কর্তৃপক্ষ প্রথম দিনে ৪০ ও ২৭ সিটের ১২টি গাড়ি চালু করেছে।
বরিশাল গ্রীন লাইন কাউন্টার ইনচার্জ হাসান সরদার বাদশা জানান, স্বপ্নের পদ্মা সেতু দিয়ে যাত্রীদের দ্রুত আরামদায়ক সেবা দেয়ার লক্ষ্যে গ্রীন লাইন কর্তৃপক্ষ ব্রান্ড এসক্যানিয়া ও ম্যান নামের গাড়িগুলো জার্মান থেকে আমদামী করেছে। এছাড়া ভলবো গাড়িগুলো সুইডেন থেকে আমদানী করা হয়েছে।
তারা প্রথম দিনে বরিশালে ১২টি গাড়ি দিয়ে সার্ভিস শুরু করেছে। তাদের ৪০ সিটের এসি গাড়ির জন প্রতি ভাড়া ৭৫০ টাকা ।
অপরদিকে ২৭সিটের এসি গাড়ির ভাড়া জনপ্রতি ১ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।
গ্রীন লাইন পরিবহনের চালক ইয়াসিন জানান, সকাল সাড়ে ৬টায় ঢাকার আরামবাগ থেকে ছেড়ে আসার পর তাদের গাড়ি ৪০ মিনিট টোল ঘড়ে বিলম্ব হওয়ার পরেও তারা তিন ঘন্টায় বরিশালে আসতে পেরেছেন।
অপরদিকে বিআরটিসি কাউন্টারে ঢাকাগামী যাত্রীদের দেখা গেছে উপচেপড়া ভিড়। তারাও টিকিট কাউন্টারে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কেনার জন্য অপেক্ষা করছেন।
এব্যাপারে বরিশাল বিআরটিসি ডিপো ইনচার্জ ম্যানেজার মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, তারা এবার বরিশাল-ঢাকার জন্য ১৪টি এসি বাস সার্ভিস চালু করেছে।
এর মধ্যে ঢাকা-বরিশাল-কুয়াকাটা রুটে ২টি, ভান্ডরিয়া ১টি ও বরিশাল-ঢাকা রুটে ১১টি এসি বাস সার্ভিস চালু করেছে।
তিনি আরো বলেন, তারা বরিশাল-ঢাকা গুলিস্তান পর্যন্ত জন প্রতি ৫০০ টাকা ভাড়া নেয়ার কারনে তাদের গাড়িতে যাত্রী চাপ রয়েছে এবং তারা আজ রোববার সকাল সাড়ে ১০ টায় ৫০ জন যাত্রী নিয়ে ঢাকায় রওয়ানা দেয়।
অপর দিকে বরিশাল নতুল্লাবাদসহ কাশিপুর সড়কে বিভিন্ন যাত্রীবাহী ও পণ্যবাহী গাড়ির চাপ বৃদ্ধি পাওয়ায় সেখানের সড়কে দায়িত্ব পালনকারী ট্রাফিক সদস্যদের অনেক বেগ পোহাতে হচ্ছে।-বাসস